Home / প্রচ্ছদ / টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের নতুন স্পীকার সাবিনা, ডেপুটি আয়াস

টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের নতুন স্পীকার সাবিনা, ডেপুটি আয়াস

কাউন্সিলার সাবিনা আক্তার টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের নতুন স্পিকার নিযুক্ত হয়েছেন। টাওয়ার হ্যামলেটসে প্রথম বাঙ্গালী মহিলা হিসাবে তিনি এই দায়িত্ব লাভ করলেন। গত টার্মে তিনি ছিলেন ডেপুটি স্পিকার। একই সাথে নতুন ডেপুটি স্পিকার হয়েছেন কাউন্সিলার আয়াস মিয়া। আয়াস মিয়া ইতিপূর্বে এনভায়রনমেন্ট বিষয়ক কেবিনেট মেম্বার ছিলেন। তারা দুজন ২০১৭/১৮ মিউনিসিপাল বছরে এই দায়িত্ব পালন করবেন।

১৭ মে, বুধবার রাতে টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের এজিএমে তারা এই পদে নির্বাচিত হন। এজিএমে নির্বাহী মেয়র জন বিগস এই দুই পদে তাদের নাম প্রস্তাব করলে প্রস্তাবটি সমর্থন করেন ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলার রাচেল সন্ডার্স।
প্রতিযোগিতায় আর কোন প্রার্থী না থাকায় স্পীকার ও ডেপুটি স্পীকার হিসেবে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন সাবিনা আক্তার ও আয়াস মিয়া।

এদিকে মেয়র জন বিগসের কেবিনেটেও পরিবর্তন আনা হয়েছে। কেবিনেটে নতুন করে যোগ দিয়েছেন কাউন্সিলার আব্দুল মুকিত চুনু এমবিই এবং কাউন্সিলার আমিনা আলী। চুনুকে কালচার এন্ড ইয়ুথ এবং আমিনা আলীকে এনভায়রনমেন্ট বিষয়ক কেবিনেট মেম্বারের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। এর আগে কালচারাল বিষয়ক লিড মেম্বার ছিলেন কাউন্সিলার আসমা বেগম। আসমা বেগমকে দেয়া হয়েছে কমিউনিটি সেইফটি বিষয়ক কেবিনেট মেম্বারের দায়িত্ব।
ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলার রাচেল সন্ডার্সের দায়িত্ব পরিবর্তন হয়েছে। তার নতুন দায়িত্ব হচ্ছে হেলথ এন্ড এডাল্ট সার্ভিস। সোমালী টাস্কফোর্স বাস্তবায়নও তার অধীনে থাকবে। তিনি এতদিন এডুকেশন এন্ড চিলড্রেন সার্ভিসের দায়িত্বে ছিলেন।

অপর ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলার শিরিয়া খাতুন চলে গেছেন ব্যাক বেঞ্চে। এর আগে তিনি ডেপুটি মেয়র এবং কমিউনিটি সেইফটি বিষয়ক কেবিনেট মেম্বার ছিলেন।
 শিরিয়া খাতুন বেক বেঞ্চে চলে যাবার কারনে ৩ জনের পরিবর্তে এখন ২ জন ডেপুটি মেয়রের দায়িত্ব পালন করবেন।

স্ট্যাটিটিউরি ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলার সিরাজুল ইসলামের দায়িত্বে কোন পরিবর্তন হয়নি। তিনি হাউজিং এর দায়িত্বে বহাল রয়েছেন। ফেইথ কমিউনিটি, ওয়েলফেয়ার রিফর্ম রেসপন্স এবং কমিউনিটি ল্যাংগুয়েজ সার্ভিসের দায়িত্বও তাকে দেয়া হয়েছে।
এদিকে, প্রথম বাঙালী মহিলা স্পীকার নির্বাচিত হওয়ায় কাউন্সিলার সাবিনা আক্তারকে অভিনন্দন জানিয়ে মেয়র জন বিগস দায়িত্ব পালনে তাঁর সফলতা কামনা করেছেন।
নবনির্বাচিত স্পীকার সাবিনা আক্তার তাঁর প্রতিক্রিয়ায় বলেন, বারার প্রথম নাগরিক হিসেবে দায়িত্ব পালন অবশ্যই গৌরব ও সম্মানের। এ পদে আমাকে নির্বাচিত করায় আমি আমার সহকর্মীদের কাছে কৃতজ্ঞ, ধন্যবাদ জানাই তাদের। তিনি বলেন, মেয়র জন বিগস, বারার বাসিন্দা, আমার সহকর্মী ও চ্যারিটি সংস্থাগুলোকে সাথে নিয়ে টাওয়ার হ্যামলেটসের উন্নয়নে কাজ করতে আমি প্রস্তুত।

নতুন ক্যাবিনেট

স্ট্যাটিটিউরি ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলার সিরাজুল ইসলাম-হাউজিং

ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলার রাচেল সন্ডার্স-হেলথ এন্ড এডাল্ট সার্ভিস

কাউন্সিলার যশোয়া প্যাক-ওয়ার্ক এন্ড ইকোনমিক গ্রোথ

কাউন্সিলার আসমা বেগম-কমিউনিটি সেইফটি

কাউন্সিলার রাচেল ব্লাইক-স্ট্র্যাটেজিক ডেভোলাপমেন্ট এন্ড ওয়েষ্ট

কাউন্সিলার এ্যামি হোয়াইটলক গিবস-এডুকেশন এন্ড চিলড্রেন

কাউন্সিলার ডেভিড এডগার-রিসোর্সেস

কাউন্সিলার আব্দুল মুকিত চুনু এমবিই-কালচার এন্ড ইয়ুথ

কাউন্সিলার আমিনা আলী-এনভায়রনমেন্ট

মেয়রের উপদেষ্টা
কাউন্সিলার জন পিয়ার্স
কাউন্সিলার ডেভ চেষ্টারটন

News taken from: Shottobani

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*